মরদেহ দাফনে বাধাদানের অভিযোগ সুদ ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে !

সোমবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০১৮ | ১২:২৬ পূর্বাহ্ণ | 1174 বার

মরদেহ দাফনে বাধাদানের অভিযোগ সুদ ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে !
নিহতের বাড়িতে স্বজনদের ভীড়। ইনসেটে শহীদুল ইসলাম।

সড়ক দূর্ঘটনায় নিহত এক দিনমজুর শহিদুল ইসলামের (৩৫) মরদেহ দাফনে বাধা দিয়েছে সুদ ব্যবসায়ী জামাত আলী। কারণ মৃত শহীদুল মারা যাওয়ার আগে সুদে টাকা নিয়েছিলেন। সেই টাকা পরিশোধের দাবিতে তাই মরদেহ দাফনে বাধ সাধেন তিনি।

এ যেন ‘মরেও শান্তি নেই’ অবস্থা। পরে অবশ্য ইউপি চেয়ারম্যানের হস্তক্ষেপে অবশেষে মরদেহ দাফন করা হয়। এমনই ঘটনা ঘটেছে পাবনার চাটমোহর উপজেলার মুলগ্রাম ইউনিয়নের জগতলা গ্রামে।

জানা গেছে, রোববার (০২ ডিসেম্বর) সকালে পাবনা সদর উপজেলার নুরপুর বাইপাস এলাকায় কাঠবোঝাই ট্রাকের নিচে চাপা পড়ে ৩ শ্রমিক নিহত ও একজন আহত হন। হতাহত সবার বাড়ি চাটমোহর উপজেলার মুলগ্রাম ইউনিয়নে। নিহতদের একজন জগতলা গ্রামের শহিদুল ইসলাম।

রোববার দুপুরে নিহতদের মরদেহ গ্রামে পৌঁছার পর হৃদয় বিদারক দৃশ্যের অবতারণা হয়। স্বজনদের আহাজারীতে ভারী হয়ে ওঠে গ্রামের বাতাস।

নিহত শহীদুলের চাচাতো ভাই আব্দুর রহমান জানান, জগতলা গ্রামের গুজরত আলীর ছেলে জামাত আলী এলাকায় একজন চিহ্নিত সুদ ব্যবসায়ী। তিনি এলাকায় দীর্ঘদিন ধরে সুদের কারবারে সাথে জড়িত। তার হাতে অনেকেই জিম্মী হয়ে পড়েছে।

নিহত শহীদুল মৃত্যুর বেশকিছুদিন আগে জামাত আলীর কাছ থেকে ২০ হাজার টাকা সুদে নেয়। প্রতিমাসে সুদের টাকা পরিশোধও করতেন শহীদুল। আসল টাকা পরিশোধ না করলেও সুদ বাবদ প্রায় ২০ থেকে ২৫ হাজার টাকা দিয়েছিলেন তিনি।

এর মাঝে রোববার মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনায় মারা যান দরিদ্র দিনমজুর শহীদুল ইসলাম। পাবনা থেকে মরদেহ গ্রামে আসার পর দাফন করার জন্য গোরস্থানে নেওয়া হয়। সেখানে মরদেহ দাফনে বাধা দেন সুদ ব্যবসায়ী  জামাত আলী।

টাকা পরিশোধ না করে শহীদুল মারা যাবেন, এটা হয়তো মানতে পারেননি ওই সুদ ব্যবসায়ী। এ নিয়ে স্থানীয়দের মাঝে উত্তেজনার সৃষ্টি হলে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করেন এবং লাশ দাফন করা হয়।

এ বিষয়ে মূলগ্রাম ইউপি চেয়ারম্যান রাশেদুল ইসলাম বকুল জানান, ‘বিষয়টি অত্যন্ত অমানবিক। জানাজায় বাধা দেওয়ার বিষয়টি জানার পর ঘটনাস্থলে গিয়ে জামাত আলীকে সতর্ক করা হয়েছে। গ্রামবাসীকে সুদ ব্যবসায়ীদের সম্পর্কে সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে।’

এ বিষয়ে কথা বলার জন্য অভিযুক্ত সুদ ব্যবসায়ী জামাত আলীর মোবাইল ফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করা হলেও তিনি ফোন রিসিভ করেননি।

এদিকে, এ ঘটনার পর এলাকাবাসী ওই সুদ ব্যবসায়ী জামাত আলীর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবী করেছেন।

মন্তব্য করতে পারেন...

comments

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০৩১  
khojkhobor.net-এ প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

আইটি সাপোর্ট ও ম্যানেজমেন্টঃ Creators IT Bangladesh

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্টঃ WebNewsDesign