বিল্লাল হত্যা মামলায় ২ জন গ্রেপ্তার; আগ্নেয়াস্ত্র-মোটরসাইকেল উদ্ধার

বৃহস্পতিবার, ১৪ অক্টোবর ২০২১ | ৭:২৪ অপরাহ্ণ | 139 বার

বিল্লাল হত্যা মামলায় ২ জন গ্রেপ্তার; আগ্নেয়াস্ত্র-মোটরসাইকেল উদ্ধার

পাবনার চাঞ্চল্যকর বিল্লাল মিশরী হত্যার রহস্য উদঘাটন ও হত্যায় জড়িত মূল অভিযুক্ত নিষিদ্ধ ঘোষিত চরমপন্থি নেতা আবুল হোসেন ওরফে আবু (২৫) সহ দুই আসামীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এ সময় হত্যাকান্ডে ব্যবহৃত আগ্নেয়াস্ত্র এবং ভিকটিমের চুরি যাওয়া মোটর সাইকেলও উদ্ধার করা হয়। গত মঙ্গলবার রাতে ঢাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৪ অক্টোবর) দুপুরে পাবনার পুলিশ সুপার মহিবুল ইসলাম খান এক প্রেসবিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

গ্রেপ্তার আবুল ওরফে আবু পাবনা সদর উপজেলার হলুদবাড়িয়া পূর্বপাড়া গ্রামের মৃত আমজাদ হোসেনের ছেলে এবং অপর আসামী সুমন আলী (২০) একই এলাকার আলাউদ্দিন মোল্লার ছেলে। নিহত বিল্লাল মিশরী আতাইকুলা থানার চরপাড়া গ্রামের বাসিন্দা।

মামলার বরাত দিয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাসুদ আলম বলেন, চলতি বছরের গত ২৭ জুন সন্ধ্যায় বিল্লাল মিশরী (৩৫) পাবনা শহরের ভাড়া বাসা থেকে মোটরসাইকেলযোগে নিজ বাড়ি আতাইকুলার চরপাড়া গ্রামে যাচ্ছিলেন। রাত সাড়ে আটটার দিকে চরপাড়া গ্রামের শহিদুল্লাহ এর চায়ের দোকানের সামনে পৌঁছালে অজ্ঞাতনামা দূর্বৃত্তরা পূর্ব পরিকল্পিতভাবে বিল্লাল মিশরীকে গুলি করে হত্যা করে। হত্যার পর আসামীরা ভিকটিম বিল্লাল মিশরীর মৃতদেহ গুম এবং এলাকায় আতংক সৃষ্টির লক্ষ্যে সর্বহারার স্লোগান দিয়ে টেনে-হিঁচড়ে ঘটনাস্থল থেকে প্রায় এক কিলোমিটার দূরে বারোপাকিয়া ব্রিজের পাশে পাটের জমিতে ফেলে চলে যায়। পরে ২৮ জুন এ ঘটনায় নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে আতাইকুলা থানায় মামলা করেন। মামলা নং-১৯।

বিল্লাল মিশরী হত্যার ঘটনায় চরমপন্থি সংশ্লিষ্টতার বিভিন্ন সূত্র ধরে তদন্তে নামে পুলিশ। থানা পুলিশ ও গোয়েন্দা পুলিশের একটি চৌকস দল ঢাকা জেলার আশুলিয়া থানা এলাকায় গত মঙ্গলবার রাতে অভিযান চালিয়ে হত্যাকান্ডের মূল আসামী চরমপন্থি নেতা আবুল হোসেন ওরফে আবু গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় তার স্বীকারোক্তির ভিত্তিতে হত্যাকান্ডে ব্যবহৃত দুটি ওয়ান শুটারগান ও দুই রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়। হত্যাকান্ডে ব্যবহৃত রিভলভারটি অপর অভিযুক্ত সুমন আলীর কাছে রেখেছিল। পরে সুমন আলীকেও গ্রেপ্তার বরা হয় এবং নিহতের মোটরসাইকেলটি উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ সুপার মহিবুল ইসলাম খান বলেন, বিল্লাল মিশরী এক সময় আবুলের সাথে একই চরমপন্থি দলের সদস্য ছিলেন। হত্যাকান্ডের কিছুদিন আগে তিনি দল ত্যাগ করে নতুন দল গঠনের চেষ্টা করছিলেন। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে আবু তার সহযোগীদের নিয়ে বিল্লালকে পরিকল্পিতভাবে গুলি করে হত্যা করেছে বলে আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকোরোক্তি দিয়েছেন প্রধান অভিযুক্ত আবুল ওরফে আবু। বৃহস্পতিবার দুপুরে তাদের আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

মন্তব্য করতে পারেন...

comments

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০  
khojkhobor.net-এ প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

আইটি সাপোর্ট ও ম্যানেজমেন্টঃ Creators IT Bangladesh

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্টঃ WebNewsDesign