‘আমার বাবা নির্দোষ’

বুধবার, ০৩ জুলাই ২০১৯ | ১০:১৮ অপরাহ্ণ | 487 বার

‘আমার বাবা নির্দোষ’
রায় ঘোষণার পর স্বজনদের আহাজারী
Advertisements

বুধবার (০৩ জুলাই) দুপুর ১২টার ঘরে। পাবনা জজকোর্ট পুরো এলাকা জুড়ে একদিকে বাড়তি নিরাপত্তা, অন্যদিকে নানা পেশার মানুষের ভীড়। উপলক্ষ, আওয়ামীলীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনার ট্রেনবহরে গুলি ও বোমাবর্ষণ মামলার রায় ঘোষণা।

ঘড়ির কাটায় দুপুর বারোটা পার হতেই পাবনার অতিরিক্ত জেলা দায়রা ও জজ আদালত-১ এর বিচারক মো. রোস্তম আলী মামলার রায় পড়া শেষ করেন। রায়ে ৯ জনকে ফাঁসি, ২৫ জনকে যাবজ্জীন ও ১৩ জনকে দশ বছর করে কারাদন্ডের ঘোষণা দেন বিচারক।

এ রায়ের খবর পাওয়ার সাথে সাথে জজকোর্টের নতুন ভবনের পাশে তখন গগনভেদি কান্নার আওয়াজ। এগিয়ে যেতেই দেখা গেলো পাবনার ঈশ্বরদী উপজেলার গোকুলনগর গ্রামের যুবদল নেতা আক্কেল আলীর ছেলে কান্নায় ভেঙ্গে পড়েছেন।

জানতে চাইলে, কান্নাজড়িত কন্ঠে বারবার বলছেন, আমার বাবা নির্দোশ। এ ঘটনার সাথে তার কোন সম্পর্কই নেই। মিথ্যা মামলায় জড়ানো হয়েছে আমার বাবাকে।

মামলায় যাবজ্জীবন সাজায় দন্ডিত আক্কেল আলীর (নুরুল ইসলাম আক্কেল) ছেলে বলেন, বাবা কখনই শেখ হাসিনার ট্রেনে হামলার সাথে জড়িত ছিলেন না। কিন্তু কেন তাকে এ সাজা ভোগ করতে হবে, প্রশ্ন রাখেন তিনি।

ঈশ্বরদীর চরমিরকামারী গ্রামের জামরুল। বিএনপি’র রাজনীতির সাথে জড়িত। মামলার রায়ে তাকে যাবজ্জীবন সাজা দেওয়া হয়েছে। জামিরুলের বোন বলেন, আমার ভাইকে ফাঁসানো হয়েছে। আমার ভাই এই মামলার সাথে জড়িত না। ভাইকে আইনীভাবে খালাস করা হবে।

যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত ফজলুর রহমানের স্বজনেরা দাবী করেন, এই রায় তারা কোনভাবেই মানতে পারছেন না। তারা উচ্চ আদালতে যাবেন বলে জানান।

উল্লেখ্য, ২৫ বছর পর পাবনার ঈশ্বরদী জংশনে আওয়ামীলীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনার ট্রেনবহরে বোমা ও গুলিবর্ষণের মামলার রায় ঘোষণা করা হয়।

মন্তব্য করতে পারেন...

comments

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০৩১  
khojkhobor.net-এ প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

আইটি সাপোর্ট ও ম্যানেজমেন্টঃ Creators IT Bangladesh