বেশি দামে পেঁয়াজ বিক্রি, ক্রেতা সেজে বাজারে এএসপি

শনিবার, ২৩ নভেম্বর ২০১৯ | ৪:০৭ পিএম | 727 বার

বেশি দামে পেঁয়াজ বিক্রি, ক্রেতা সেজে বাজারে এএসপি
Advertisements
Share Button

পাবনার চাটমোহরে বেশি দামে পেঁয়াজ বিক্রির অভিযোগ পেয়ে সাদা পোশাকে বাজার মনিটরিংয়ে গেলেন সহকারী পুলিশ সুপার (চাটমোহর সার্কেল) সজীব শাহরীন। অভিযোগের সত্যতা যাচাই করতে শুক্রবার সকালে তিনি কোনো পুলিশ ছাড়াই নিজে বাজার করতে যান।

এ সময় পুরাতন বাজারের জিনদার হোসেন নামে এক পাইকারী পেঁয়াজ বিক্রেতার কাছে নিজের পরিচয় গোপন রেখে পেঁয়াজ কিনতে গিয়ে বেশি দামে পেঁয়াজ বিক্রির সত্যতা পান।

জানা গেছে, বৃহস্পতিবার চাটমোহর পাইকারী বাজারে প্রতি কেজি পেঁয়াজ বিক্রি হয়েছিল ১৪০ থেকে ১৫০ টাকা দরে। খুচরা বিক্রেতারা সেই পেঁয়াজ বিক্রি করছিলেন ১৭০ থেকে ১৮০ টাকা দরে।

কিন্তু শুক্রবার কোনো কারণ ছাড়াই মজুদকৃত পেঁয়াজ জিনদার হোসেনসহ অন্য পাইকাররা ১৯০ থেকে ২০০ টাকা দরে পেঁয়াজ বিক্রি শুরু করেন। এদিকে বেশি দাম দিয়ে কেনায় খুচরা বিক্রেতারা সেই পেঁয়াজ বিক্রি করেছেন ২২০ টাকা দরে।

এক দিনের ব্যবধানে দাম বাড়ানোর এমন অভিযোগ এক ক্রেতা এএসপিকে মোবাইলে জানালে তিনি (এএসপি) নিজে বাজার মনিটরিংয়ে নেমে এর সত্যতা পান।

খবর পেয়ে বাজারে ছুটে আসেন থানার ওসি সেখ নাসীর উদ্দিন, পৌর সভার নিরাপদ খাদ্য পরিদর্শক আবুল কালাম আজাদ দুলাল, ওয়ার্ড কাউন্সিলর সাদেক আকন্দ ও ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি কেএম বেলাল স্বপন।

এ সময় ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দের আশ্বাসে আইনানুগ কোনো ব্যবস্থা না নিয়ে এএসপি আড়তদারদের ভৎর্সনা করে মৌখিকভাবে সতর্ক করে দেন। এছাড়া বাজার মূল্য ছাড়া পেঁয়াজ বিক্রি না করতে নির্দেশ দেন। আড়তদাররাও এএসপিকে বেশি দামে পেঁয়াজ বিক্রি না করার প্রতিশ্রুতি দেন।

এএসপি সজীব শাহরীন বলেন, মজুদ করে বাজারে যে কোন পণ্য অতিরিক্ত দামে বিক্রি করলে বা গুজব ছড়ালে বসে থাকবে না পুলিশ। ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দের আশ্বাসে প্রথমবারের মতো ওই আড়তদারকে ক্ষমা করে মৌখিকভাবে সতর্ক করে দেয়া হয়েছে। এরপর এমন অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Share Button

মন্তব্য করতে পারেন...

comments

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০৩১  
খোঁজখবর.নেট এ প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Development by: webnewsdesign.com

error: Content is protected !!